এরশাদ ২৪ মার্চ গণতন্ত্র হত্যা করেছিলেন: ফখরুল

0
14

১৯৮২ সালের ২৪ মার্চ হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ অবৈধভাবে রাষ্ট্রক্ষমতা দখল করে সামরিক ফরমান জারির মাধ্যমে জিয়াউর রহমানের পুনরুজ্জীবিত বহুদলীয় গণতন্ত্রকে হত্যা করেছিলেন বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, এ দিনেই কেড়ে নেওয়া হয়েছিল বাক, বিবেক, ব্যক্তি, মুদ্রণ ও সমাবেশের স্বাধীনতাসহ মানুষের সব নাগরিক স্বাধীনতা। ৯ বছর ছাত্র-গণআন্দোলন নিষ্ঠুরভাবে দমন করতে গিয়ে স্বৈরশাসকের বাহিনী গুলি চালিয়ে হত্যা করে ছাত্র-জনতাকে। ১৯৮২ থেকে ১৯৯০ সাল পর্যন্ত জাতির জীবনে এক কলঙ্কময় অধ্যায় রচিত হয়েছিল।

শুক্রবার গণমাধ্যমকে পাঠানো বিবৃতিতে মির্জা ফখরুল এসব কথা বলেন। বিএনপি দিবসটিকে কালো দিবস হিসেবে পালন করে আসছে।

বিএনপি মহাসচিব আরও বলেন, সেই স্বৈরশাসকের সঙ্গে মিশেছে আওয়ামী লীগ। তারা মিলেমিশে জনগণের অধিকারকে কেড়ে নিয়েছে। বর্তমান এই গণবিরোধী মহাজোটের শাসনামলে আবার বহুমাত্রিক গণতন্ত্রের পথ চলাকে আটকে দিয়ে মানুষকে খাঁচায় বন্দী করে রাখা হয়েছে।

এ অবস্থা থেকে মুক্তি পেতে দল, মত নির্বিশেষে সব পর্যায়ের মানুষকে ঐক্যবদ্ধভাবে সংগ্রামী অভিযাত্রায় সামিল হওয়ার আহবান জানান তিনি।

সবশেষে যারা এরশাদের বিরুদ্ধে আন্দোলনে যোগ দিয়ে আত্মাহুতি দিয়েছেন, তাদের প্রতি শ্রদ্ধা ও আত্মার শান্তি কামনা করেন মির্জা ফখরুল। সুত্রঃ সামাকাল।

Leave a Reply