কোটা সংস্কারের দাবি যৌক্তিক: বিএনপি

0
9

সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কারের জন্য আন্দোলনকারীদের তুলে ধরা দাবিকে যৌক্তিক বলে মনে করে বিএনপি। রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সোমবার এক জরুরি সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির এই অবস্থানের কথা জানান দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, আন্দোলনকারী এসব চাকরি প্রার্থী ও ছাত্রছাত্রীদের দাবি যৌক্তিক। তাদের শান্তিপূর্ণ এ আন্দোলনে বিনা উস্কানিতে পুলিশ বর্বরোচিত হামলা চালিয়েছে।

এছাড়া ওই আন্দোলনে যারা আহত হয়েছেন তাদের আশু সুস্থতা কামনা এবং আন্দোলনের অংশগ্রহণকারী যাদেরকে গ্রেফতার করা হয়েছে তাদের নিঃশর্ত মুক্তি দাবি জানিয়েছেন তিনি।

কোটা পদ্ধতি নিয়ে আন্দোলনকারীদের দাবি ও পুলিশি হামলার ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে দলের প্রতিক্রিয়া তুলে ধরতেই এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে বিএনপি।
মির্জা ফখরুল বলেন, এদেশকে সত্যিকার অর্থে গড়ে তুলতে হলে মেধার কোনো বিকল্প নাই। এই লক্ষ্যে স্থির থেকে সংশ্নিষ্ট বিষয়গুলো যৌক্তিক বিবেচনায় এনে বিএনপির ভিশন ২০৩০ বলা হয়েছে যে, মেধার মূল্যায়ন নিশ্চিত করার লক্ষ্যে নিয়োগ প্রক্রিয়ায় যথাযথ সংস্কার করা হবে। মুক্তিযোদ্ধার সন্তান, নারী, ও প্রান্তিক জাতি-গোষ্ঠির কোটা ব্যাতিরেকে বাকী কোটা পদ্ধতি বাতিল করা হবে। বিএনপির দেওয়া ভিশন- ২০৩০’ এই বিষয়টি (কোটা) সরকার বিবেচনায় নিলে এই পরিস্থিতির উদ্ভব হতো না।

তিনি বলেন, গণতন্ত্রের নিয়মের প্রতি এই সরকারের কেনো শ্রদ্ধাবোধ নেই যা গত প্রায় এক দশকে বর্তমান সরকার বার বার তাদের কার্যক্রমের মাধ্যমে প্রমাণ করেছে। যার ফলশ্রুতিতে বর্তমান শাসকদের দেশ পরিচালনায় অন্যায়-অবিচারের শিকার হয়েছে দেশের জনগন, বিশেষ করে মেধাবী ও শিক্ষিত তরুণ সমাজ।
সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আবদুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান সেলিমা রহমান, শামসুজ্জামান দুদু, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী ও সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন উপস্থিত ছিলেন। সুত্রঃ সমকাল।

Leave a Reply